০৮ মার্চ ২০২১, ১০:৩৯ অপরাহ্ন

সুনামগঞ্জ
ভাতগাঁও ইউপি নির্বাচনে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন লড়াইয়ে আলোচনায় যারা
tea

ছাতক (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধিঃ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের প্রথম ধাপে আগামী ১১ এপ্রিল দেশের ৩২৩ ইউপিতে ভোট করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে নির্বাচন কমিশন।

সুনামগঞ্জ জেলার ছাতক উপজেলার ভাতগাঁও, সিংচাপইড় ও নোয়ারাই এই তিনটি ইউনিয়নে ১১ এপ্রিল ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

সেই ঘোষণা অনুসারে সুনামগঞ্জ জেলার ছাতক উপজেলার ভাতগাঁও ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে সম্ভাব্য চেয়ারম্যান, ওয়ার্ড সদস্য ও সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে অংশ নিতে ইচ্ছুক প্রার্থীরা পাড়া-মহল্লায় গিয়ে দোয়া ও সমর্থন আদায়ের প্রতিযোগিতায় নেমেছেন।

সম্প্রতি করোনাকালে বর্তমান চেয়ারম্যান ও সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থী এবং মেম্বার পদে অংশগ্রহণে ইচ্ছুক প্রার্থীরা অনেকেই করোনায় স্বল্প আয়ের অসহায় মানুষের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করেন।

এ সুবাদে বর্তমানে দল বেঁধে প্রার্থীগণ ভোটারদের দ্বারে দ্বারে গিয়ে কুশল বিনিময় ও খোঁজখবর ও গণসংযোগ চালাচ্ছেন। এ ছাড়াও লিফলেট, পোষ্টার, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক, মোবাইলেও তারা প্রচার-প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন।

তবে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়নে তফসিল ঘোষণার পর থেকেই ভাতগাঁও ইউনিয়নে বিরাজ করছে নির্বাচনী আমেজ। সম্প্রতি নির্বাচন কমিশন ১ম ধাপে ইউপি নির্বাচন ঘোষণার সঙ্গে সঙ্গে উপজেলার দক্ষিণ-পশ্চিম প্রান্ত নিয়ে গঠিত ভাতগাঁও ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকায়, চায়ের দোকান, মুদি দোকান, রাস্তা-ঘাটসহ বিভিন্নস্থানে চলছে আলোচনা আর সমালোচনা।

এসব আলোচনার ফাঁকে প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন তাদের পরিবারের সদস্যরাও। তবে আলোচনায় চেয়ারম্যান ও সংরক্ষিত মহিলা সদস্য ও পুুুরুষ সদস্য পদের সম্ভাব্য প্রার্থীদের চাইতে প্রাধান্য পাচ্ছে ক্ষমতাসীন দলের ৯ জন হেভিওয়েট প্রার্থীর মনোনয়ন নিয়ে।বর্তমানে ইউনিয়নজুড়ে আলোচনা একটাই এবার ভাতগাঁও ইউপি নির্বাচনে আওয়ামী লীগ থেকে কে হবেন নৌকার মাঝি।সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থীদের মধ্যে আলোচনার শীর্ষে রয়েছেন, প্রবাসে মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক,সাবেক দুইবারের চোয়ারম্যান আলহাজ্ব মোহাম্মদ গিয়াস মিয়া, টানা দুইবারের চেয়ারম্যান মোঃ আওলাদ হোসেন মাস্টার, ইউনিয়ন আওয়ামিলীগের সভাপতি দবিরুল ইসলাম দবির, ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক,সিলেট মহানগর আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ সভাপতি মুজিবুর রহমান মালদার ও ইউনিয়ন আওয়ামিলীগের সিনিয়র সহ সভাপতি ফয়জুল বারী।

তাছাড়া প্রচারণায় পিছিয়ে নেই, সাবেক ইউ/পি সদস্য, ইউ/পি যুবলীগের সাবেক সভাপতি হাজী মোঃ গৌছ উদ্দিন খাঁন, প্রবাসী মোঃকবির মিয়া,সাবেক ছাত্রলীগ নেতা মনির উদ্দিন ও প্রবাসী হাজী মামুনুর রশীদ মামুন (জিল্লুল হক)।

ক্ষমতাসীন দলের সম্ভাব্য ৯ জন চেয়ারম্যান প্রার্থীদের মধ্যে কার জনপ্রিয়তা বেশি? কাকে মনোনয়ন দিলে ভালো হবে? কার মনোনয়নে জয়ের সম্ভাবনা বেশি?

এসব বিষয়ে ইউনিয়নে চলছে চুলচেরা বিশ্লেষণ। তবে, দলীয় মনোনয়ন পেতে সবাই তাকিয়ে আছেন উপজেলা ও জেলার নেতৃবৃন্দের দিকে। অধীর আগ্রহে তারা অপেক্ষায় আছেন কেন্দ্রীয় ঘোষণার জন্য। আবার তারা কেন্দ্রীয় বা উপজেলা ও জেলা নেতাদের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রক্ষা করে লবিং করছেন।

নিজের অবস্থান তুলে ধরে তাদের মন জয়ের চেষ্টাও করছেন। ভাতগাঁও ইউনিয়নে গত নির্বাচনে নৌকা নিয়ে বিপুল ভোটে নির্বাচিত হওয়া বর্তমান চেয়ারম্যান মো.আওলাদ হোসেন মাস্টার।

সম্ভাব্য ৯ জন চেয়ারম্যান প্রার্থীই দলীয় মনোনয়ন পাবেন বলে ভোটারদেরকে আশ্বস্ত করছেন।ভোটারগণ অধীর আগ্রহে অপেক্ষার প্রহর গুনছেন,অবশেষে কে হচ্ছেন ভাতগাঁও ইউনিয়নের নৌকার মাঝি।

সম্পর্কিত খবর

একটি মন্তব্য করুন

সম্পর্কিত মন্তব্য

img
img
img